Wed. May 18th, 2022

মাদক ও চাঁদাবাজির সঙ্গে জড়িত সৈয়দপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নজির হোসেনকে গ্রেফতারের দাবি জানিয়েছে সৈয়দপুর উপজেলা ও পৌর আওয়ামীলীগ। শনিবার দুপুরে তার বিরুদ্ধে থানায় ওই স্মারকলিপি দেয়া হয়।
সৈয়দপুর উপজেলা ও পৌর আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দ স্মারকলিপি নিয়ে সৈয়দপুর থানায় যান। এ সময় থানার অফিসার ইনচার্জ শাহজাহান পাশার হাতে স্মারকলিপি তুলে দেন সৈয়দপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আখতার হোসেন বাদল, পৌর আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রফিকুল ইসলাম বাবু ও সাধারণ সম্পাদক মোজাম্মেল হকসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ। স্মারকলিপিতে মাদক সেবন ও বিক্রি, চাঁদাবাজিসহ বিভিন্ন অপকর্মে জড়িত উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি নজির হোসেনকে গ্রেফতার করার দাবি জানানো হয়। এর আগে স্থানীয় আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। এতে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন আওয়ামীলীগ সৈয়দপুর পৌর শাখার সাধারণ সম্পাদক মোজাম্মেল হক। এ সময় সেখানে অন্যন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সাবেক পৌর মেয়র ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আখতার হোসেন বাদল, পৌর আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রফিকুল ইসলাম বাবু, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সানজিদা বেগম লাকী, সিনিয়র সহ-সভাপতি ইদ্রিস আলী, আ’লীগ নেতা জোবায়দুর রহমান শাহিন, সরকার মো. কবির উদ্দিন ইউনুস, মীর সানোয়ার আলী, পৌর কাউন্সিলর মিনারা বেগম, এজাজুল ইসলাম বাচ্চু, তাঁতী লীগ নেতা মহসিনুল হক মহসিন ও ছাত্রলীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগসহ অন্যান্য অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ।
লিখিত বক্তব্যে বলা হয় ছাত্রলীগ সৈয়দপুর উপজেলা শাখার সভাপতি নজির হোসেন ছাত্রলীগ কার্যালয়কে মাদকের আখড়ায় পরিণত করেছে। সেখানে সাধারণ মানুষকে ধরে এনে নির্যাতন করে চাঁদা নেয়া হয়। এমনকি তার অন্যায়ের প্রতিবাদ করতে গিয়ে আওয়ামী লীগ নেতারাও লাঞ্চিত হচ্ছেন। এসব অপকর্মের কারণে তাকে অবাঞ্চিত ঘোষণা করে সংগঠন থেকে বহিস্কারের দাবি জানানো হয়।

By

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!